Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 11

ক্ষমা চাওয়া ছাড়া আমার তো আর কোনও উপায়ই নেই। তবে নতুন অফিস, তাই চাপ তো ছিল, এখনও, আছে, তবে এবার ম্যানেজেবল। তাই আশা করছি, এর পর থেকে লেখা আবার নিয়মিতই হবে। আর কথা না বাড়িয়ে চলে আসি সেমি-ফাইনাল পর্বে। একসাথে কাটানো যাক, ভুটানে শেষ রাত্রি... একাদশ পর্ব : লাস্ট সাপার… -“না  ভাই… আমি রিসেপশনে গিয়ে …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 11

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 10

দশম পর্ব : দ্যা লঙ্গেস্ট নাইট… তখনো গেম অফ থ্রোন্স শেষ হয়নি, তাই নাইট কিং মারা যাওয়ার সাথে, ভুটানের কি সম্পর্ক, সেটা যদি বুঝতে কষ্ট হয়, চিন্তা করবেন না, সেটা অচিরেই বুঝতে পারবেন। ঝিরিঝিরি বৃষ্টি মাথায় নিয়ে আমরা রওনা হয়ে পড়লুম। আমরা মানে আমি আর লাহা। কালো আকাশের চেহারা দেখে বোঝাই যাচ্ছিল এ বৃষ্টি সহজে …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 10

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 9

নবম পর্ব : বাঘের বাসা… বৌদ্ধ গুরু রিমপোচে বা আমাদের ভাষায় বললে ‘পদ্মসম্ভব’ ভুটানে এসে একটি উড়ন্ত বাঘিনীর পিঠে চড়ে উড়ে যান, দূর্গম পাহাড়ের একটি গুহায় তপস্যা করতে। এবং সেখানেই তৈরী হয়েছে তাকসাং বা ‘টাইগার্স নেস্ট’ মনাস্ট্রী। পদ্মসম্ভব মহাপুরুষ ছিলেন; বলা হয় গৌতম বুদ্ধ তাঁর দেহে দ্বিতীয়বার জন্মগ্রহন করেন। কিন্তু, আমরা তো ঘোর পাপী? তাই …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 9

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 8

অষ্টম পর্ব – পারোর পথে… ভদ্রলোকের এক কথা। কিন্তু আমাদের ড্রাইভার সাহেব যে এরকম খাঁটি ভদ্রলোক, তা ভেবে আমরা আন্দাজও করতে পারিনি। সকালে উঠে বারবার ফোন করেও যখন ড্রাইভার সাহেবের পাত্তা পাওয়া গেল না, তখন বোঝা গেল, নিজের কথামতই, আমাদের অন্য গাড়ির ভরসায় ছেড়ে তিনি ভেগেছেন। তাই, অন্য ড্রাইভার জোগাড় করতে হবে। তা এবার আমি, …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 8

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 6

ষষ্ঠ পর্ব : থিম্ফুতে দ্বিতীয় রাত… ‘সিমপ্লি ভুটান থেকে বেড়িয়ে আমরা হোটেলের দিকেই ফিরছিলাম, এমন সময় একটা অদ্ভূত জিনিস দেখতে পেলাম। একটা আস্ত ফুটবল স্টেডিয়াম। হ্যাঁ, আকারে হয়তো আমাদের যুবভারতীর সাথে তুলনা করা বাতুলতা হবে, তবু, স্টেডিয়াম তো বটে। কৌতুহলী হয়ে সেখানেই ছেড়ে দিলাম গাড়িটা। পায়ে হেঁটে কিছুদুর গিয়ে যা বুঝতে পারলাম, প্র্যাকটিশ ম্যাচ চলছে …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 6

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 5

পঞ্চম পর্ব : থিম্ফু দর্শন নিজের ঘর ছেড়ে বেড়োলেই আমার সক্কাল সক্কাল ঘুম ভেঙে যায়। তাই বেড়াতে গিয়ে আমার জন্য অন্তত কারোর কোনওদিন দেরী হয়নি। সকালে ঘুম ভাঙল তখন বাজছে প্রায় সাতটা। সকাল ন’টায় গাড়ি বলা আছে, আর অন্য কেউ ওঠেনি দেখে, আমি তাড়াতাড়ি স্নানটা সেরে নিলাম, বেড়িয়ে দেখলাম আমার বাকী রুমমেটরাও উঠে পড়েছে। আমি …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 5

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 4

চতুর্থ পর্ব : থিম্ফুতে প্রথম রাত… তখন গাড়ি চালাতে জানতাম না ঠিকই, কিন্তু পাহাড়ে বাঁক ঘোরার মুখে যে গাড়িতে বার বার হর্ন দিতে হয়, সেটুকু সাধারণ জ্ঞান আমার ছিল। কিন্তু আমাদের ড্রাইভারসাহেব হর্ন একেবারেই ব্যবহার করছেন না দেখে, সামনে বসা আফরোজই জিজ্ঞাসা করল, -“আপনি হর্ন ব্যবহার করছেন না কেন?” উত্তরে নির্বীকার মুখে ড্রাইভারসাহেব উত্তর দিলেন, …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 4

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 3

তৃতীয় পর্ব : পরিচয় এবং ফুন্টশোলিং…   অবশেষে এসে গেল সেই দিন। সকাল থেকে ঝমঝম করে বৃষ্টি, বাড়ির সবার মুখ গোমড়া কেবল আমিই নির্লিপ্ত। খাটের ওপর শুয়ে আছি পায়ের ওপর পা তুলে আর ঘরের কোণে দাঁড়িয়ে আমার রুকস্যাক। দুপুর দেড়টা নাগাদ তিস্তা-তোর্সা এক্সপ্রেস ধরতে হবে শেয়ালদা থেকে; কাকা যাবে সঙ্গে স্টেশনে ছাড়তে। বাড়ি থেকে বেড়িয়ে, …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part 3

Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part I

আমার ব্লগ শুরুর পর থেকে, আমি ট্র্যাভেলগ লিখেছি তিনবার। একবার আমার প্রথম একা ট্রেক করার, দুই যখন ভাইরা মিলে ড্রাইভ করে দীঘা গেলাম, আর তিন যখন গত বছর বন্ধুরা মিলে পুরী-ভূবনেশ্বর ঘুরে এলাম। তো পুরীটা ছাড়া, আমি ব্লগে লিখেছি সারাদিনের অভিজ্ঞতা, সন্ধেবেলায় এসে। আর সারাদিনের ঘোরাঘুরির পর, মাথা আর হাত দিয়ে যা বেরিয়েছে, ঠিক তাই …

Continue reading Wanderlust : Land of the Thunder Dragon – Part I

তরঙ্গ – শেষ পর্ব

সোমনাথের ঘুম ভাঙে, তখন ঠিক সকাল সাতটা। মেসবাড়ির তার ঘরটা ছোট্ট; একদিকে একটা খাট সেটার পাশেই একটা টেবিল পাতা, তার পড়াশোনার জন্য। অন্যদিকে একটা টেবলে একটা ইলেক্ট্রিক হিটার, চায়ের কৌটো, কয়েকটা বাসন কোসন। আড়মোড়া ভেঙে উঠে ঘরের বাইরে বেড়োতেই মেসমালিক কয়ালবাবুর সাথে দেখা। তিনি একগাল হেসে বললেন, -“কি হে সোমনাথ! তোমাদের গর্ত খোঁড়ার আর কতদিন …

Continue reading তরঙ্গ – শেষ পর্ব